থাইল্যান্ড ভ্রমণে কোয়ারেন্টিনের সময় কমলো

নিউজনাউ ডেস্ক: আগামী মাস থেকেই করোনার টিকা গ্রহণ করা বিদেশী ভ্রমণপিপাসুদের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিনের সময় ১৪ দিন থেকে কমিয়ে সাতদিন করেছে থাইল্যান্ড।অতি সম্প্রতি এ বিধান চালু হচ্ছে বলে জানিয়েছেন থাইল্যান্ডের স্বাস্থ্যমন্ত্রী অনুতিন চার্নভিরাঙ্কুল। খবর রয়টার্স।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী অনুতিন চার্নভিরাঙ্কুল এক সংবাদ সম্মেলনে জানান, সফরের তিন মাসের মধ্যে করোনার টিকা নিয়েছেন, এমনটা প্রমাণ দেখাতে হবে পর্যটককে। একই সঙ্গে নিজের দেশ ছাড়ার তিনদিনের মধ্যে করোনা পরীক্ষায় নেগেটিভ প্রমাণ দেখাতে হবে। তবে যারা এখনো টিকা নেননি, যদি এমন কোনো পর্যটক থাইল্যান্ড সফরে যান তাহলে তাকে করোনামুক্ত সনদ দেখাতে হবে এবং ১০ দিন কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে। উল্লেখ্য, করোনা মহামারীর কারণে থাইল্যান্ডের ফ্লাইট সীমিত করা হয়েছে। কঠোর করা হয়েছে নিয়মকানুন।

সে দেশে যাওয়া সবাইকে বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিনে পাঠানোর কথা বলা হয়। এসব বিধিনিষেধের কারণে দেশটির অতিগুরুত্বপূর্ণ পর্যটন খাতে ধস নেমেছে। ব্যাপকভাবে চাকরি হারিয়েছে মানুষ। বন্ধ হয়ে গেছে ব্যবসা-বাণিজ্য। ২০১৯ সালে এ দেশ সফরে গিয়েছিল প্রায় চার কোটি পর্যটক। স্বাভাবিক সময়ে থাইল্যান্ডের জনপ্রিয় পর্যটনকেন্দ্রগুলোয় যেখানে ৪০ হাজার থেকে ৫০ হাজার পর্যটক আসত, বর্তমানে তা কয়েকশতে নেমে এসেছে।

পর্যটন খাত চাঙ্গায় বিদেশী পর্যটকদের জনপ্রিয় পর্যটনকেন্দ্রগুলোয় কোয়ারেন্টিনে থাকার মতো ব্যবস্থার কথাও ভাবছেন বলে জানান থাইল্যান্ডের পর্যটনমন্ত্রী। এছাড়া বিদেশী পর্যটকরা ইচ্ছে করলে প্রমোদতরীতেও কোয়ারেন্টিনে থাকতে পারবেন। ইয়ট বা প্রমোদতরীতে কোয়ারেন্টিন গ্রহণ করলে এ খাত থেকে ১৮০ কোটি বাথ বা ৫ কোটি ৮০ লাখ ডলার আয় হবে বলে মনে করছে সরকার।

নিউজনাউ/আরবি/২০২১

+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
এছাড়া, আরও পড়ুনঃ
মন্তব্য
Loading...
%d bloggers like this: