সারাদেশে আইসোলেশন ইউনিট খোলার নির্দেশ

চীনে ছড়িয়ে পড়া করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের শনাক্ত ও সুচিকিৎসা নিশ্চিত করতে আগাম প্রস্তুতি হিসেবে সারাদেশের সরকারি হাসপাতালগুলোতে অবিলম্বে আইসোলেশন ইউনিট খোলার নির্দেশনা জারি করেছে স্বাস্থ্য অধিদফতর।

প্রথম পদক্ষেপে দেশের আটটি বিভাগের সব জেলা সদর ও মেডিকেল কলেজ হাসপাতালগুলোতে এই ইউনিট খোলা হবে।

সোমবার ঢাকার মহাখালীতে স্বাস্থ্য অধিদফতরের সম্মেলন কক্ষে স্বাস্থ্য মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ বিভাগীয় পরিচালক ও সিভিল সার্জনদের সঙ্গে করোনা ভাইরাস নিয়ে ভিডিও কনফারেন্স চলাকালে এই নির্দেশনা দেন। একইসঙ্গে দেশের সব স্থল ও নৌবন্দরসহ বিভিন্ন দেশ থেকে আসা যাত্রীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষার পাশাপাশি সতর্ক দৃষ্টিদানের নির্দেশ দেয়া হয়।

এর আগে রোববার স্বাস্থ্যমন্ত্রীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এক বৈঠকে জেলাসদর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পৃথক আইসোলেশন ওয়ার্ড খোলার সিদ্ধান্তের পাশাপাশি দেশের ২৪টি স্থল ও নৌবন্দরে আগাম সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণের সিদ্ধান্ত হয় এবং তা চিঠি দিয়ে বিভাগীয় পরিচালক ও সিভিল সার্জনদের জানিয়ে দেয়া হয়।

অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ জানান, এখন পর্যন্ত দেশে এই রোগে আক্রান্ত কোনো রোগী পাওয়া যায়নি। তবে আগাম সতর্কতা হিসেবে দেশের সব স্থলবন্দরে আপাতত বিদেশ থেকে আগত যাত্রীদের হেলথ কার্ডের মাধ্যমে সংগ্রহ তথ্য সংগ্রহ ও থার্মোমিটার দিয়ে জ্বর মেপে মনিটরিং করা হবে।

চীনে এ পর্যন্ত ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় তিন হাজার মানুষ। এদের মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৮২ জনের। আক্রান্তদের প্রায় সবাই উহান বা এর কাছাকাছি স্থানে ছিলেন। চীন ছাড়াও ভাইরাস ছড়িয়ে গেছে বিশ্বের অন্তত ১২টি দেশে।

নিউজনাউ/কেবিএ/২০২০

+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
এছাড়া, আরও পড়ুনঃ
মন্তব্য
Loading...
%d bloggers like this: