এবার মাস্ক পরতে রাজি ট্রাম্প

নিউজনাউ ডেস্ক:

তিনি নামজাদা একজন বিশ্বনেতা। সারাবিশ্বে এবং তার দেশে করোনার ভয়াবহ অবস্থা সত্ত্বেও মাস্ক পরিধানে তার ছিল তীব্র অনীহা। এতোদিন ধরে মাস্ক নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার গাইডলাইন প্রকাশ্যেই উপেক্ষা করে আসছিলেন তিনি। তিনি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। অবশেষে মত পাল্টেছেন তিনি, বলেছেন তার আশপাশে যদি মানুষ বেশি থাকে তাহলে তিনি মাস্ক পরবেন।

এতোদিন ধরে ট্রাম্প বলে আসছিলেন, করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে মাস্ক পরার বিষয়টি বাধ্যতামূলক করার কোনো প্রয়োজন নেই। এমনকি জনসমাগমস্থলেও মাস্ক পরা থেকে বিরত ছিলেন ট্রাম্প। তবে সম্প্রতি নিজ দলের একজন শীর্ষস্থানীয় নেতা তাকে অনুরোধ করেন, তিনি যাতে উদাহরণ সৃষ্টির জন্য মাস্ক পরেন। এর একদিন পরই রিপাবলিকান ঘরানার টেলিভিশন চ্যানেল ফক্স নিউজে মাস্ক পরার পক্ষে মন্তব্য করেন ট্রাম্প।

ফক্স বিজনেস নেটওয়ার্কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘আমি মাস্কের পক্ষে।’ তাকে জিজ্ঞাসা করা হয় যে তিনি মাস্ক পরবেন কিনা? উত্তরে তিনি বলেন, ‘আমি যদি মানুষের সঙ্গে ঠাসাঠাসি অবস্থায় থাকি, তাহলে আমি অবশ্যই আমি মাস্ক পরবো।’

যেদিন মাস্ক পরার পক্ষে ট্রাম্প এমন মন্তব্য করেন সেদিনটিতে যুক্তরাষ্ট্রে একদিনে সর্বোচ্চ ৫২ হাজার মানুষের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে।

ট্রাম্প বলেন, মানুষ তাকে অতীতে মাস্ক পরতে দেখেছে এবং জনসমাগমের মধ্যে এটি পরতে তার কোনো সমস্যা নেই।

তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের সব জায়গায় মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করার প্রয়োজন নেই। আমাদের দেশে অনেক জায়গা আছে যেখানে মানুষজন পরস্পরের কাছ থেকে বেশ দূরে অবস্থান করে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, লোকজন যদি মাস্ক পরে ভালো বোধ করে তাহলে তারা পরতে পারে।

ট্রাম্পের কাছে প্রশ্ন ছিল, করোনাভাইরাস একদিন উধাও হয়ে যাবে! এ কথা তিনি এখনও বিশ্বাস করেন কিনা? জবাবে তিনি বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করি। অবশ্যই, কোনো একটা সময় এটা চলে যাবে।’

রসিকতা করতেও ভোলেননি তিনি। মাস্ক পরলে তাকে লন রেঞ্জারের (কাল্পনিক চরিত্র) মতো দেখা যাবে বলেও মন্তব্য করেছেন তিনি।

নিউজনাউ/এসএইচ/২০২০

+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
আপনার মতামত জানান
%d bloggers like this: