মিশন অস্ট্রেলিয়া, ফেভারিট বাংলাদেশ!

নিউজনাউ ডেস্ক: অস্ট্রেলিয়ার সাথে খেলা, সেখানে কিনা বাংলাদেশ ফেভারিট! এইকথা বললে কেউ বিশ্বাস করবে না ঠিকই। কিন্তু খেলা যখন ক্রিকেটের সবচেয়ে ছোট ফরমেটে, বাংলাদেশের মাটিতে এবং অস্ট্রেলিয়ার প্রায় দ্বিতীয় সারির দলের সাথে তখন ফেভারিট তকমা দল না লাগালেও দর্শক বা আলোচকরা বলতেই পারেন।

এই প্রথম অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টি-টোয়ান্টির দ্বিপাক্ষিক সিরিজ, তাও আবার পাঁচ ম্যাচের। তবে করোনার কারণে অজিদের মাত্রাতিরিক্ত শর্তারোপে সিরিজ কিছুটা নিষ্প্রাণ হলেও ম্যাচ একবার মাঠে গড়ালেই থাকবে টানটান উত্তেজনা। অজিদের বড় তারকারা নিয়েছেন ‘ছুটি’। ব্যাটিং লাইন আপে তারা
পাচ্ছে না ওয়ার্নার, ফিন্স, স্মিথ, ম্যাক্সিওয়েলদের। তাতে কি, বাংলাদেশেও যে নেই তামিম, লিটন, মুশফিক! তারপরও অনেকেই এগিয়ে রাখছেন সদ্যই জিম্বাবুয়েতে ‘সব জিতে’ আসা বাংলাদেশকেই।

তবে অজিদের বোলিং বেশ ভোগাতে পারে বাংলাদেশকে। মিচেল স্টার্কই থাকবেন তার নেতৃত্বে, হ্যাজলউড, অ্যাস্টন অ্যাগার, অ্যাডাম জাম্পারা তো আছেনই।

তবে এত নেই এর জন্যই সুযোগ মিলেছে দুই দলের তরুণদের। আফিফ যথেষ্ট সময় ব্যাট করার সুযোগ না পাওয়ায় অনেকের আফসোস ছিল। শামীম পাটোয়ারী মাত্রই দলে এসেছেন, তবে দায়িত্ব যে নিতে পারেন সেটা প্রমাণ করতে পারেন চাইলে এই সিরিজেই। টাইগারদের ব্যাটিংয়ে অবশ্য বড় দায়িত্বটা নিতে হবে সাকিব আল হাসান ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদকেই। দলে অভিজ্ঞ তো তারাই।

খেলার আগের দিন বাংলাদেশে অধিনায়ক জানালে তার চিন্তা। তিনি বলেন, টি-টোয়েন্টি সংস্করণই এমন, নির্দিষ্ট দিনে ভালো খেললে যে কোনো দলকে হারানো সম্ভব। র‌্যাঙ্কিংয়ে তারা যত ওপরের দলই হোক। ওদের কয়েকজন ক্রিকেটার আসেনি। আমরাও তেমনি কয়েকজনকে মিস করছি, তামিম-মুশফিক-লিটন নেই। আমাদের দলের জন্য ও প্রতিটি ক্রিকেটারের জন্য বড় সুযোগ আমাদের মান দেখানোর। আমি সবসময় বিশ্বাস করি যে ঘরের মাঠে আমরা ভালো দল এবং এটা দেখানোর চেষ্টা করব এবারও।

তবে অজি অধিনাক ম্যাথু ওয়েডও স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন, তারা এসেছেন এই সিরিজ জিততে। প্রতিটি ম্যাচই আমরা সবসময় জিততে চাই। তবে এটা একটা সুযোগ সবাইকে দেখার যে বিভিন্ন ভূমিকায় তারা কেমন করছে, যাতে বিশ্বকাপের দল নির্বাচনের সময় বোঝা যায় কোন ভূমিকায় কে কেমন করছে। সেই সুযোগটি নিতে সবাই রোমাঞ্চিত। নানা জায়গায় নিজেদের তুলে ধরতে মুখিয়ে থাকবে অনেকেই।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে এখন পর্যন্ত চারটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছে বাংলাদেশ। সবগুলোই বিশ্বকাপের মঞ্চে। চারটি ম্যাচেই হেরেছে বাংলাদেশ। সর্বশেষ ম্যাচটি ছিল ২০১৬ সালে অনুষ্ঠিত ভারতের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে।

সম্ভাব্য একাদশ, বাংলাদেশ

সৌম্য সরকার, নাঈম শেখ, সাকিব আল হাসান, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, আফিফ হোসেন, নুরুল হাসান সোহান, শামীম পাটোয়ারী, সাইফউদ্দিন, নাসুম আহমেদ/শরিফুল ইসলাম, তাসকিন আহমেদ, মুস্তাফিজুর

সম্ভাব্য একাদশ, অস্ট্রেলিয়া

ম্যাথু ওয়েড, ফিলিপে, মিচেল মার্শ, অ্যালেক্স ক্যারি, হ্যানরিকস, ম্যাকডরমট, ক্রিশ্চিয়ান, অ্যাগার, জাম্পা, স্টার্ক, হ্যাজলউড

নিউজনাউ/পিপিএন/২০২১

+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
আপনার মতামত জানান
%d bloggers like this: