মৌলবাদ, ধর্মীয় উসকানি মোকাবেলায় সমাজসেবার বিকল্প নেই: নওফেল

চট্টগ্রাম ব্যুরো: বাংলাদেশে আগামী দিনে মৌলবাদসহ ধর্মীয় উসকানি এবং সাম্প্রদায়িক শক্তির উত্থানের বিরুদ্ধে যে চ্যালেঞ্জ সেটি মোকাবেলায় সমাজসেবা অধিদফতরকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল।

শনিবার (১২ জুন) চট্টগ্রামের মুরাদপুরে সমাজসেবা অধিদফতরে আঞ্চলিক প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে ‘প্রশিক্ষণ লব্ধজ্ঞান মাঠ পর্যায়ে বাস্তবায়নের কৌশল ও করণীয়” বিষয়ক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

নওফেল বলেন, এই সরকারের উন্নয়ন যা দৃশ্যমান, বিশেষত সরাসরি ৮৮ লাখ মানুষ সরকারের আর্থিক সুবিধা পান সেটা আপনাদের সামনে আনতে হবে। মানুষের জন্য উন্নয়ন এইটাই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দর্শন। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দায়িত্বে নিয়েই সমাজ সেবা-কে রাষ্ট্রীয় ভাবে প্রতিষ্ঠিত করতে বিভিন্ন ধরনের উদ্যোগ গ্রহণ করেছিলেন। তিনি বিভিন্ন আন্তর্জাতিক দাবত্য সংস্থাকে বাংলাদেশ কাজ করা জন্য আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন। বঙ্গবন্ধু মুক্তিযুদ্ধে পাক-হানাদার বাহিনীর হাতে নির্যাতিত, প্রতিবন্ধী হতে শুরু করে বিভিন্ন ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের পাশে কিভাবে দাঁড়ানো যায় সেইটা সর্বদা চিন্তা করতেন। জাতির পিতার রাষ্ট্র পরিচালনা ক্ষেত্রে সবাই-কে সাথে নিয়ে চলার এবং সামাজিক উন্নয়নের প্রতি বেশী গুরুত্ব দিয়ে যে দর্শন ও আদর্শ ছিল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মাঝে বিরাজমান।তিনি রাস্তা-ঘাট, অবকাঠামোগত উন্নয়নের পাশাপাশি সমাজের পিছিয়ে পরা জনগোষ্ঠীর উন্নয়নেও কাজ করে যাচ্ছেন।

প্রায় সবগুলো ভাতায় শেখ হাসিনা রাষ্ট্র ক্ষমতায় থাকা অবস্থায় চালু করা হয়েছে জানিয়ে নওফেল বলেন, যেমন বয়স্ক ভাতা কর্মসূচি চালু হয়েছে ১৯৯৭-৯৮ সালে, বিধবা ও স্বামীনিগৃহীতা ভাতা ১৯৯৮-৯৯ সালে করা। একটি শুরু মাত্র অন্য সরকার আমলে চালু হয়েছে ২০০৫-০৬ সালে তা হলো অসচ্ছল প্রতিবন্ধী ভাতা সেটিও কিন্তু সব চেয়ে বেশী বরাদ্দ তিনিই করেছেন। শেখ হাসিনা’র সরকার ২০২০-২১ অর্থ বছরে সামাজিক নিরাপত্তা কার্যক্রমের আওতায় শুধুমাত্র সমাজসেবা অধিদফতর মাধ্যমেই ৯০ লক্ষ মানুষ-কে ভাতা ও বৃত্তি দিয়েছে। জনপ্রতি মাসিক ৫০০ টাকা বয়স্কভাতা পেয়েছেন ৪৯ লক্ষ জন, বিধবা ও স্বামীনিগৃহীতা ভাতা পেয়েছেন ২০ লক্ষ ৫০ হাজার জন, জনপ্রতি মাসিক ৭৫০ টাকা হারে প্রতিবন্ধী ভাতা পেয়েছেন ১৮ লক্ষ জন, জনপ্রতি মাসিক ৭৫০-১৩০০ টাকা হারে পাচ্ছেন ১ লক্ষ প্রতিবন্ধী শিশু শিক্ষা উপবৃত্তি, মাসিক ২০০০ টাকা হারে বেসরকারি এতিমখানা-তে প্রতিপালিত ১ লক্ষ এতিম শিশু পাচ্ছে ক্যাপিট্যাশনগ্রান্ট। ৫০ হাজার বেদেও অনগ্রসর জনগোষ্ঠীর প্রবীন ব্যক্তিদের ৫০০ টাকা হারে দেয়া হচ্ছে বিশেষ ভাতা। ৫০০ টাকা হারে ভাতা পাচ্ছেন ২৬০০ হিজড়া। ২৫ হাজার ৯০০ বেদে ও অনগ্রসর জনগোষ্ঠী ও ১২৪৭ জন হিজড়া শিশু পাচ্ছে বিশেষ উপবৃত্তি। বীর মুক্তিযোদ্ধাদের ১২০০০ টাকা করে ভাতা প্রদান করে হয়েছে যা আগামী অর্থ বছর থেকে ২০০০০ বৃদ্ধি করা হচ্ছে। ভাতা বিতরণের এই চিত্র সাধারণ মানুষের কাছে তুলে ধরতে শিক্ষা উপমন্ত্রী সমাজসেবা কর্মকর্তাদের প্রতি অনুরোধ জানান।

সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপনা করেন সমাজসেবা অধিদফতর চট্টগ্রামের পরিচালক নুসরাত সুলতানা। আঞ্চলিক প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের অধ্যক্ষ( সহকারী পরিচালক) কামরুল পাশা ভূঁইয়ার সঞ্চালনায় সেমিনারে আলোচক হিসেবে আরো বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ে উপ-পরিচালক মোঃশহীদুল ইসলাম, কক্সবাজার জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ে উপ-পরিচালক ফরিদুল, বিভাগীয় সমাজসেবা কার্যালয়ে উপ-পরিচালক হাসান মাসুদ, সমাজসেবা অধিদফতরের সহকারী পরিচালক মোঃ শাহীনেওয়াজ, নাজমা আকতার, মোঃ ওয়াহীদুল আলম, মোঃ শফিউদ্দিন, ফারহানা আমিন, আফতান উদ্দিন।

সেমিনারে চট্টগ্রাম বিভাগের বিভিন্ন জেলার থানা ও উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

নিউজনাউ/আরবি/২০২১

+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
আপনার মতামত জানান
%d bloggers like this: