রাশিয়ায় ২০ হাজার টন তেল নদীতে, জরুরি অবস্থা জারি

নিউজনাউ ডেস্ক:

রাশিয়ায় সাইবেরিয়ার সুমেরীয় অঞ্চল নরিলক্সে একটি জ্বালানি তেলের ট্যাংক ফেটে  ২০ হাজার টন তেল নদীতে ছড়িয়ে পড়েছে। এতে দূষণের পরিমাণ এতটাই বেড়েছে যে দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন জরুরি অবস্থা জারি করেছেন।

আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়, শুক্রবার নরিলক্সে একটি থার্মাল পাওয়ার স্টেশনে বিশালাকার একটি জ্বালানির ট্যাংকার ফেটে যায়। খনন কাজের সঙ্গে যুক্ত একটি সংস্থা ডিজেল রেখেছিল বিরাট ট্যাংকে। সেই ট্যাংক আচমকা ফেটে বেশিরভাগ ডিজেল মিশে যায় নদীতে। এর ফলেই এমন ঘটনা ঘটে।

দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদ মাধ্যমে বলা হয়েছে, নদীর ৩৫০ বর্গ কিলোমিটার এলাকা জুড়ে দূষণ ছড়িয়েছে। দূষণের পরিমাণ এতটাই ভয়াবহ যে, স্যাটেলাইট ছবিতেও ধরা পড়ছে। গুগল ম্যাপ ও ইয়ান্ডেক্স স্যাটেলাইট ছবিতেও নদীর জলের লাল রং ফুটে উঠেছে।

ঘটনার পর কয়েকদিন কেটে গেলেও স্থানীয় প্রশাসন বুঝতে পারছে না যে ঠিক কী করা উচিত। পরে পুতিন জরুরি অবস্থা জারি করেন।

এদিকে এমন ঘটনায় পাওয়ার স্টেশনের পরিচালককে আটক করা হয়েছে। তাকে ৩১ জুলাই পর্যন্ত আটকে রাখা হবে। তবে তার বিরুদ্ধে এখনো কোনো অভিযোগ গঠন করা হয়নি। ঘটনা ঘটার দুই দিন পরে জানানোর জন্য তাদের বিরুদ্ধে ক্রিমিনাল মামলা শুরু করতে যাচ্ছে রাশিয়ার তদন্ত কমিটি। ঘটনা দ্রুত তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট পুতিন।

সূত্র: বিবিসি

নিউজনাউ/ এম এইচ/ ২০২০

Express Your Reaction
Like
Love
Haha
Wow
Sad
Angry
এছাড়া, আরও পড়ুনঃ
Loading...