চলচ্চিত্র নির্মাণে সরকারি অনুদান নিয়ে ক্ষুব্ধ পাঁচ‌টি সংগঠন

নিজস্ব প্রতিবেদক:

বরাব‌রের ম‌তোই ২০১৯-২০২০ অর্থবছরেও চল‌চ্চি‌ত্রে দেওয়া হ‌য়ে‌ছে অনুদান। ২৭ জুন এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে তথ্য মন্ত্রণালয় জানায়, এবছর ১৬টি পূর্ণদৈর্ঘ্য ও ৯টি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র নির্মাণের জন্য অনুদান দেয়া হ‌য়ে‌ছে। এরমধ্যে পূর্ণদৈর্ঘ্য পাচ্ছে মোট ৮ কোটি ৫৯ লাখ টাকা ও স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রের জন্য ১ কোটি ৫২ লাখ ৫০ হাজার টাকা।

এমন ঘোষণায় তথ্যমন্ত্রী অ‌ভিনন্দন জানায় চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি, পরিচালক সমিতি এবং চলচ্চিত্র প্রযোজক পরিবেশক সমিতি। অন্য‌দি‌কে, একদিনের মাথায় পুরো বিষয়টিকে নিয়ে নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে চল‌চ্চিত্র সং‌শ্লিষ্ট ৫টি সংগঠন এর পক্ষ থে‌কে বাংলাদেশ শর্ট ফিল্ম ফোরাম।

২৮ জুন, ফোরামের সাধারণ সম্পাদক রাকিবুল হাসানের পাঠানো একটি সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে জানানো হয়, সামাজিকভাবে দায়বদ্ধ এবং শৈল্পিক চলচ্চিত্র নির্মাণের যে অঙ্গীকার অনুদান নীতিমালায় রয়েছে তার প্রতিফলন ঘটেনি এবারও। তি‌নি ব‌লেন, ‘আমরা হতাশা ও ক্ষোভের সঙ্গে লক্ষ করছি, অনুদানের জন্য যে চলচ্চিত্র এবং পরিচালকদের নাম এবার প্রকাশ করা হয়েছে, তাদের বেশিরভাগই বাণিজ্যিক চলচ্চিত্রের সাথে সম্পর্কিত। শুধু তা-ই নয়, অনেকেরই চলচ্চিত্র পরিচালনার ন্যূনতম অভিজ্ঞতা আছে বলে আমাদের জানা নেই।’

উক্ত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরও উল্লেখ করা হয়, ২০১৮-১৯ অর্থবছরেও অনুদান নিয়ে অনেক বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছিল। কিন্তু সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ বরাবরই তা উপেক্ষা করেছে।

বাংলাদেশ শর্টফিল্ম ফোরাম মনে করে, চলচ্চিত্র একটি শক্তিশালী শিল্পমাধ্যম। যা রাষ্ট্রের স্বপ্ন ও জনগণের আশা-আকাঙ্ক্ষার প্রতিচ্ছবি হয়ে উঠতে পারে। জনগণের অর্থ ব্যয় করে বাণিজ্যিক চলচ্চিত্রের মতো স্থূল ও বিকৃত বিনোদনের প্রসার কোনো অবস্থাতেই সঠিক নয় বলে দাবি করে ফোরামটি।

এবারের অনুদানের তালিকায় পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রামাণ্য চলচ্চিত্রের অনুপস্থিতি বাণিজ্যিক দৃষ্টিভঙ্গিরই নামান্তর- এমনটাও উল্লেখ করে তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশ শর্টফিল্ম ফোরাম।

‌বিজ্ঞ‌প্তিদাতা সংগঠনগু‌লোর ম‌ধ্যে র‌য়ে‌ছে বাংলা‌দেশ শর্ট‌ফিল্ম ফোরাম, বাংলা‌দেশ ফিল্ম সোসাই‌টি, বাংলা‌দেশ প্রামাণ্য‌চিত্র পর্ষদ, বাংলা‌দেশ ফিল্ম ইনস্টি‌টিউট, ফিল্ম উইদাউট ফিল্ম।

নিউজনাউ/এসএইচ/২০২০

Express Your Reaction
Like
Love
Haha
Wow
Sad
Angry
এছাড়া, আরও পড়ুনঃ
Loading...