তিস্তায় রেড এলার্ট, খুলে দেয়া হচ্ছে ফ্লাডবাইপাস

জুয়েল আহমেদ, রংপুর ব্যুরো:
উত্তরের তিস্তা নদীতে ওপার থেকে ধেয়ে আসছে পানি। শুক্রবার (১০ জুলাই) থেকে অস্বাভাবিকভাবে পানি বেড়ে রবিবার (১২ জুলাই) রাত ৮টায় বিপৎসীমার ৫০ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে বয়ে যায়। এতেই হুমকিতে পরে দেশের বৃহৎ এই সেচ প্রকল্পের ব্যারেজটি।

আগে থেকেই মাইকিং করে স্থানীয়দের সর্তক করে দেয়া হলেও রবিবার রাতে ব্যারেজ এলাকায় লাল পতাকা লাগিয়ে রেড এলার্ট জারি করে পানি উন্নয়ন বোর্ড। আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে মোতায়েন করা হয়েছে অতিরিক্ত পুলিশ।

রংপুর পানি উন্নয়ন বোর্ডের প্রধান প্রকৌশলী জ্যোতি প্রসাদ ঘোষ নিউজনাউকে জানিয়েছেন, ভারতের বিভিন্ন জেলায় ভারি বৃষ্টির কারণে তাদের বেশ কয়েকটি নদনদী বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হয়। এতে ফুলে ওঠে তিস্তা নদীও। রবিবার সকাল ১০টায় গজলডোবা ব্রিজ কর্তৃপক্ষ তাদের সবক’টি গেট খুলে দিয়ে ব্রিজ এলাকাকে রেড জোন হিসাবে ঘোষণা করে। নদীতে পানির প্রবাহ থাকে ৪ হাজার কিউমেক। আর এ কারণেই বাংলাদেশের তিস্তা নদীর প্রবাহ বেড়ে যায়। যা এবছর স্মরনকালের পানির প্রবাহ থাকে। যা ব্যারেজকে হুমকিতে ফেলে।

তিনি জানান, যদিও ব্যারেজের উজানে অটোমেশনের মাধ্যমে ব্যারেজ সুরক্ষার জন্য নদীর গতিপথ পরিবর্তন করে উত্তরে অবস্থিত দীর্ঘ এক কিলোমিটার ফ্লাডবাইপাসটি নিজেই ধসে যায়। কিন্তু ১৩ বছর ধরে নদীর এই অবস্থার সৃষ্টি না হওয়ায় পরিবহন চলাচলের কারণে বর্তমানে ফ্লাডবাইপাসটি শক্ত হয়ে গেছে এমনিতেই ভেঙে না গেলে যন্ত্রেও সাহায্যে কেটে দেয়া হবে।

তিনি আরও জানান, বাইপাসের ভাটিতে বসবাসকারীদের নিরাপদ স্থানে সরে যাওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। এর পরেও অনেকেই সেখানে অবস্থান করছেন। সে কারণে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সহযোগিতা নেয়া হয়েছে। মোতায়েন করা হয়েছে অতিরিক্ত পুলিশ।

নিউজনাউ/এবি/২০২০

Express Your Reaction
Like
Love
Haha
Wow
Sad
Angry
এছাড়া, আরও পড়ুনঃ
Loading...