করোনা আতঙ্ক: মাছ মাংস খেতে ভয় কাটাবেন কীভাবে

নিউজনাউ ডেস্ক:

এই করোনা আতঙ্কের মাঝে আমাদের খাওয়া-দাওয়াতেও কিছু কিছু ভীতি চলে এসেছে। ঘরে বাইরে যাই খেতে চাই, ভয় করে যে করোনা ভর করে না বসে। বিশেষ করে মাছ মাংসের প্রতি আমাদের অনীহা বেশি। মাছ মাংস খেলে করোনা আক্রান্তের ব্যাপারে বিশেষজ্ঞরা সরাসরি কিছু না বললেও সাবধানে থাকতে হবে, বিশেষ যত্নশীল হতে হবে মাছ মাংস রান্না আর পরিবেশনের ক্ষেত্রে।

কেনার আগে মাংস টাটকা কিনা ভালো করে দেখে নিন। মাংস বাজার থেকে কাটিয়ে নিয়ে আসুন। গরম পানিতে লবণ দিয়ে মাংস ধুয়ে ভালো করে সিদ্ধ করে নিন।

মাছ-মাংস অবশ্যই ভালোমতো সিদ্ধ করে রান্না করতে হবে। বিশেষ করে বাইরে খেতে গেলে সতর্ক থাকা প্রয়োজন। অনেক হোটেল-রেস্টুরেন্টে বাবুর্চিরা তাড়াতাড়ি রান্না করতে গিয়ে ভালোমতো সিদ্ধ করে না। বিশেষভাবে সতর্ক থাকা প্রয়োজন চিকেন ফ্রাই, চিকেন তন্দুরি, গ্রিলড চিকেন খাওয়ার ক্ষেত্রে। প্রায়ই দেখা যায়, ভেতরে মাংস ঠিকমতো সিদ্ধ হয় না, সেগুলো একদমই খাওয়া ঠিক নয়।

সাধারণত বাড়িতে মাছ-মাংস ভালো করেই রান্না করা হয়। সেগুলো ফ্রিজে একসঙ্গে না রেখে ছোট ছোট বাটিতে আলাদাভাবে রাখুন। আর ফ্রিজ থেকে বের করে খাওয়ার আগে সেগুলো খুব ভালো করে গরম করতে হবে। যেন খাবারের প্রতিটি কণা তাপ পায়। কারণ ফ্রিজে ঠাণ্ডায় খাবার গন্ধ বা নষ্ট না হলেও জীবাণু ঠিকই যুক্ত হয়।

বাজার থেকে সাধারণত দু-এক দিনের নয়, একবারে কয়েকদিনের জন্য মাছ-মাংস কেনা হয়। সেগুলো কেটে-ধুয়ে প্যাকেট করে রেখে দেওয়া হয় ফ্রিজে। এই কাঁচা মাছ-মাংস ফ্রিজ থেকে বের করেই রান্না করা যাবে না। বিশেষ করে মাংস। রান্নার অন্ততপক্ষে দুই-তিন ঘণ্টা আগে বের করতে হবে। পানিতে ভিজিয়ে রেখে নরম করে নিতে হবে। পুরোটুকু স্বাভাবিক তাপমাত্রায় যেমন নরম থাকে তেমন হয়ে এলে রান্না করতে হবে।

রাধুনীর ব্যক্তিগত পরিচ্ছন্নতার ওপরও নজর দিতে হবে। তার হাত-পা থেকে শুরু করে পোশাক-আশাক হতে হবে পরিষ্কার। সেটা ঘরের মানুষ, গৃহকর্মী বা হোটেলের বাবুর্চি, যে-ই হোক না কেন। হাঁচি-কাশি এলে রান্নাঘরের বাইরে এসে দিতে হবে।

খাওয়ার বেশিক্ষণ আগে খাবার পরিবেশন করা যাবে না। রান্নার পর খাবার ঢাকনা দিয়ে ভালোভাবে ঢেকে রাখতে হবে। হোটেল-রেস্টুরেন্টে প্রায়ই এর ব্যতিক্রম দেখা যায়। খাবার খোলা অবস্থায় রাখা হয় ক্রেতাদের মনোযোগ আকর্ষণের জন্য। আবার বিভিন্ন সামাজিক অনুষ্ঠানে-আয়োজনেও খাবার দীর্ঘক্ষণ ধরে খোলা অবস্থায় রাখা হয়।

নিউজনাউ/এসএইচ/২০২০

Express Your Reaction
Like
Love
Haha
Wow
Sad
Angry
এছাড়া, আরও পড়ুনঃ
Loading...