এসএসসি গুরুত্ব পাবে এইচএসসি’র ফলে

নিজস্ব প্রতিবেদক: এইচএসসি পরীক্ষার বিকল্প মূল্যায়নে জেএসসির থেকে বেশি গুরুত্ব দেওয়া হবে এসএসসি’র ফল। আর যারা এসএসসির পর বিভাগ পরিবর্তন করেছেন তাদের গড় রেজাল্ট তৈরি করতে কাজে লাগানো হবে আগের বছরগুলোর অভিজ্ঞতা। এমন পরিকল্পনা নিয়েই উচ্চ মাধ্যমিকে মূল্যায়নের চিন্তা করছে এ সংক্রান্ত কারিগরি পরামর্শক কমিটি।

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতর সূত্রে জানা গেছে, এবার এইচএসসি পরীক্ষায় নিয়মিত অনিয়মিত মিলিয়ে ১৩ লাখ ৬৫ হাজার ৭৮৯ জন শিক্ষার্থীর অংশ নেওয়ার কথা ছিল। কিন্তু করোনাভাইরাস মহামারির কারণে তা সম্ভব হয়নি। ফলে পরীক্ষার বিকল্প মূল্যায়ের উপায় খুঁজছে সরকার। এরই মধ্যে কাজ শুরু করেছে এ সংক্রান্ত কারিগরি পরামর্শক কমিটি।

ঢাকা শিক্ষা বোর্ড সূত্রে জানা গেছে, এইচএসসি পরীক্ষার বিকল্প মূল্যায়নে জেএসসি ও এসএসসির ফল মূল্যায়ন করে ফলাফল তৈরি করার কথা বলা হলেও অষ্টম শ্রেণির সমাপনীর চেয়ে গুরুত্ব পাবে এসএসসির ফল। সেই সঙ্গে যারা এসএসসির পর বিভাগ পরিবর্তন করেছেন তাদের গড় রেজাল্ট তৈরির সময় আগের বছরগুলোর অভিজ্ঞতা কাজে লাগানো হবে।

এ প্রসঙ্গে এইচএসসি পরীক্ষা সংক্রান্ত কারিগরি পরামর্শক কমিটির সদস্য সচিব ও আন্তবোর্ড সমন্বয়ক প্রফেসর মু. জিয়াউল হক বলেন, এসএসসি এবং এইচএসসি পরীক্ষায় মূলত একই বিষয়ের পরীক্ষা গ্রহণ করা হয়ে থাকে। পরীক্ষার যে গড় ফল আসে তা সবসময় কাছাকাছি জায়গায় থাকে। এখন দেখা হচ্ছে, আগের বছরগুলোতে পরীক্ষার ফল কী রকম হয়েছে, সেখানে যারা বিভাগ পরিবর্তন করে এসেছিলো তাদের কী কী পরিবর্তন হয়েছে। এসব তথ্য উপাত্ত বিশ্লেষণ করে আমরা একটি সমন্বয় করার একটা সূত্র খুঁজে পাব।

শিক্ষাবিদরা বলছেন, শিক্ষার্থীদের পেশাগত জীবনের পথ অনেকটাই এই উচ্চ মাধ্যমিকে নির্ধারণ হয়। তাই এ পর্যায়ের পরীক্ষা অনেক গুরুত্বপূর্ণ।

এদিকে, কোন প্রক্রিয়ায় এইচএসসিতে মূল্যায়ন হবে তার গাইডলাইন তৈরির কাজ চলছে। যা চলতি মাসের শেষের দিকে শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে দেবে জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ড।

উল্লেখ্য, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর গত ১৭ মার্চ থেকে দেশের সকল পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। যে কারণে গত ১ এপ্রিল থেকে এইচএসসি পরীক্ষা আয়োজনের কথা থাকলে তা সম্ভব হয়নি। একইসঙ্গে স্থগিত করা হয় সব ধরনের পাবলিক পরীক্ষা। শিক্ষার্থীরা যাতে একবছর ক্ষতিগ্রস্থ না হয় সেজন্য পরীক্ষার বিকল্প মূল্যায়নের উদ্যোগ নিয়েছে সরকার।
নিউজনাউ/এনএইচএস/২০২০

Express Your Reaction
Like
Love
Haha
Wow
Sad
Angry
এছাড়া, আরও পড়ুনঃ
Loading...