নাটকীয় ম্যাচে কলকাতাকে হারালো দিল্লি

নিউজনাউ ডেস্ক: রোমাঞ্চকর ম্যাচে কলকাতাকে হারিয়ে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে উঠে এসেছে দিল্লি। শারজাহ ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টসে জিতে দিল্লিকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় কলকাতা নাইট রাইডার্স। টস হেরে ব্যাট করতে নেমে দলকে উড়ন্ত সূচনা এনে দেন দিল্লির দুই ওপেনার শিখর ধাওয়ান ও পৃথ্বি শ্ব। প্রথম ছয় ওভারে ৫৭ রান পেয়ে যায় দিল্লি। ইনিংসের ষষ্ঠ ওভারে সাজঘরে ফেরার আগে ২টি করে চার ও ছয়ের মারে ১৬ বলে ২৬ রান করেন বাঁহাতি ওপেনার ধাওয়ান।

ধাওয়ান আউট হলে উইকেটে আসেন অধিনায়ক শ্রেয়াস আয়ার। আয়ারের সাথে মাত্র ৪১ বলে ৭৪ রানের জুটি করে ব্যক্তিগত ৬৬ রানে বিদায় নেন ওপেনার পৃথ্বী শ্ব।

তবে পৃথ্বী শ্ব ফিরে গেলেও কলকাতার বোলারদের একতরফা শাসন করতে থাকেন অধিনায়ক আয়ার। তাকে সঙ্গ দেন রিশাভ পান্থ এবং শিমরন হেটমেয়ার। শেষ পর্যন্ত ৩৮ বলে ৮৮ রানের ইনিংস খেলে অপরাজিত থাকেন আয়ার। তার এই বিধ্বংসী ইনিংসে ভর করে কলকাতার সামনে পাহাড়সম ২২৯ রানের টার্গেট দেয় দিল্লি। যা কিনা চলতি আইপিএলে সর্বোচ্চ দলীয় সংগ্রহ।

মাথার ওপর ২২৯ রানের পাহাড়সমান লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে শুরুতেই হোঁচট খায় কলকাতা। ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারে ওপেনার সুনিল নারিন মাত্র ৩ রান করে অ্যানরিচ নর্টজের বলে বোল্ড হন।
দ্রুত উইকেট পতনের পর কিছুটা বিপাকে পড়ে যায় দীনেশ কার্তিকের সতীর্থরা। ১২২ রান তুলতেই ৬ উইকেট নেই কলকাতার। শুভমান গিল এবং নিতিশ রানা মিলে প্রাথমিক বিপর্যয় সামাল দেন। দলীয় ৭২ রানে গিলের বিদায়ে ভাঙ্গে সেই জুটি। বড় সংগ্রহে ব্যর্থ হন আন্দ্রে রাসেলও। অধিনায়ক দীনেশ কার্তিক এবং প্যাট কামিন্সও উইকেটে থিতু হতে পারেননি।

সপ্তম উইকেটে ৩০ বলেই ৭৮ রানের অবিশ্বাস্য এক জুটি গড়ে ম্যাচ জমিয়ে তুলেন ইয়ন মরগ্যান আর ত্রিপাথি।

১৮তম ওভারে রাবাদাকে টানা তিন ছক্কা হাঁকিয়ে মরগ্যান কাঁপিয়ে দেন দিল্লি শিবির। ওই ওভারে ত্রিপাথির এক বাউন্ডারিসহ ২৩ রান তুলে কলকাতা। শেষ দুই ওভারে তখন দরকার ৩১ রান। এক ওভারেই ২৩ রান তোলা দলের জন্য কাজটাকে অসম্ভব মনে হচ্ছিল না।

কিন্তু পরের ওভারে দারুণ বোলিংয়ে ম্যাচে ঘুরে দাড়ায় দিল্লী। শেষ ওভারের তৃতীয় বলে মরগ্যান আউট হলে ম্যাচ থেকে ছিটকে পড়ে কলকাতা। কলকাতার ইনিংস থামে ৮ উইকেটে ২১০ রানে।

নিউজনাউ/এমএএম/২০২০

Express Your Reaction
Like
Love
Haha
Wow
Sad
Angry
এছাড়া, আরও পড়ুনঃ
Loading...