চট্টগ্রাম বন্দরের ‘মহাপ্রতারক’ গ্রেপ্তার

চট্টগ্রাম ব্যুরো: তার যে কত নাম, কখনো বাবর বা জামান কিংবা শওকত আকবর, কখনো বা ফারুক! কাজ তার এইসব নাম পরিবর্তন করে বিভিন্ন ব্যাংকের এলসি জালিয়াতি ও প্রতারণা থেকে শুরু করে গার্মেন্ট পণ্য চুরি এবং সন্ত্রাসী কার্যক্রম চালানো। তবে শেষ পর্যন্ত এই মহাপ্রতারককে গ্রেপ্তার করেছেনগর গোয়েন্দা পুলিশ।
শনিবার গাজীপুরের আশুলিয়ায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তার কাছ থেকে আমদানি করা প্রায় দেড় কোটি টাকার গার্মেন্ট পণ্য উদ্ধার করা হয়।
মূলত চট্টগ্রাম বন্দরের মাধ্যমে আমদানি-রপ্তানি সংক্রান্ত কাজ নিয়ে প্রতারক চক্রের মূলহোতা ছিল ফারুক বিন জামান ওরফে বাবর।
নগর গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (বন্দর) আবু বকর সিদ্দিক জানান, আমদানি-রপ্তানি সংক্রান্ত কার্যক্রমের সাথে সম্পর্কিত ব্যাংকিং ও বিভিন্ন সরকারি কাগজপত্র নকল ও জালিয়াতি করে প্রতারণাপূর্বক বিপুল পরিমাণ আর্থিক সুবিধা ভোগ করে অনেক ব্যবসায়ীকে পথের ভিখারী বানিয়েছেন বহুরূপী এই প্রতারক।
তিনি বলেন, গত আগস্টে বাবরের বিরুদ্ধে বন্দর থানায় ঢাকার এআরকে এন্টারপ্রাইজের এমডি নাসির উদ্দিন সিকদারের দায়ের করা একটি মামলার তদন্তকালে আমদানি করা গার্মেন্ট পণ্যসামগ্রী খালাস করে প্রতারণাপূর্বক চুরি ও বিক্রি করে দেয়ার সম্পৃক্ততা পাওয়া যায়। এই মামলায় তাকে গ্রেপ্তার করে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।
তার নামে নগরসহ দেশের বিভিন্ন থানায় প্রায় অর্ধশতাধিক মামলা রয়েছে বলেও জানান তিনি।

নিউজনাউ/পিপিএন/২০২০

Express Your Reaction
Like
Love
Haha
Wow
Sad
Angry
এছাড়া, আরও পড়ুনঃ
Loading...